Principal's Message

ঐতিহ্যবাহী ও গৌরবদীপ্ত প্রতিষ্ঠান ঢাকা মহিলা কলেজ। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর ঐতিহাসিক স্মৃতি বিজড়িত. ৩২ নং ধানমন্ডির নিকটেই এই প্রতিষ্ঠানটির অবস্থান। ১৯৯২ সালের ৭ জুনের এক মাহেন্দ্রক্ষণে প্রতিষ্ঠিত হয় ঢাকা মহিলা কলেজ। বিশিষ্ট সমাজসেবক ,শিক্ষানুরাগী ও বর্তমান গভর্ণিং বডির সুযোগ্য চেয়ারম্যান মিসেস কামরুন নাহার জহীর তার দুই একজন সহকর্মীকে নিয়ে উদ্যোগ গ্রহন করেন ঢাকা মহিলা কলেজকে বাস্তবে রূপ দান করতে। ধানমন্ডির অভিজাত এই এলাকায় একটি আদর্শ নারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলার লক্ষ্যে তাঁদের স্বপ্নকে বাস্তব রূপ দান করেন তাঁর স্বামী প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান, বিশিষ্ট শিল্পপতি ও সমাজসেবক মরহুম লায়ন হুমায়ূন জহীর। ২০০৫ সালে যাঁর দানকৃত জমিতে আজকের এই নারী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠিানটি সমহিমায় মাথা উচুঁ করে দাঁড়িয়ে আছে তিনি হলেন সর্বজন শ্রদ্ধেয়া রত্নগর্ভা মহীয়সী নারী কুলসুম মজিদ। এছাড়াও যাদের কথা শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করতে হয় তাঁরা হলেন ঢাকা কমার্স কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর নুরুল ইসলাম ফারুকী, ইডেন কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রয়াত হাস্না বেগম। এছাড়াও রয়েছেন স্থানীয় শিক্ষানুরাগী গন্যমান্য আরো অনেকেই। সকলের প্রতি আমরা কৃতজ্ঞ। বর্তমানে কলেজটিতে এইচ এস সি এবং ডিগ্রি পর্যায়ের পাঠদান চলছে। কলেজ প্রতিষ্ঠার প্রথম থেকেই ছাত্রীরা বোর্ড পরীক্ষায় সম্মিলিত মেধা তালিকায় স্থানসহ ঈর্ষণীয় সাফল্য অর্জন করে আসছে। এখনও আশানুরুপ ফলাফল অব্যাহত রয়েছে। স্মরণ করা প্রয়োজন যে, কলেজের সাবেক গভর্ণিং বডির চেয়ারম্যান বিশিষ্ঠ শিক্ষানুরাগী, সমাজসেবক ও ধানমন্ডি এবং মোহাম্মদপুরের উন্নয়নের রূপকার মরহুমআলহাজ্জ্ব মকবুল হোসেন এমপি মোহাম্মদপুরে কলেজের একখন্ড নিজস্ব জমি ক্রয়ে সার্বিকভাবে সহায়তা করেন। সাবেক গভর্ণিং বডির চেয়ারম্যান প্রখ্যাত সাংবাদিক প্রয়াত বেবী মওদুদ এম পি কলেজকে ২০১১-২০১২ সেশন থেকে ডিগ্রি পর্যায়ে উন্নীত করেন। সাবেক গভর্ণিং বডির সুযোগ্য চেয়ারম্যান ডাঃ খালেদা বেগম কলেজের প্রশাসনিক, সাংস্কৃতিক কর্মকান্ড, আর্থিক অনুদান প্রাপ্তি সহ একাডেমিক উৎকর্ষতা অর্জনে নিরলস প্রচেষ্টা করেছিলেন। তাঁকে ও আমরা গভীরভাবে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা, ধন্যবাদ ও অভিনন্দন জানাই। কলেজের সাথে সরাসরি সম্পৃক্ত না থেকেও শিক্ষানুরাগী, বিশিষ্ট আইনজীবী ও সমাজসেবক ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস, মাননীয় মেয়র, ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন এর আর্থিক সহায়তা, সু-পরামর্শ ও দিকনির্দেশনায় কলেজটি উত্তরোত্তর সাফল্যের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। তাঁর অবদান আমরা সবসময়ই শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করি এবং তাঁকে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ জানাই। পরিশেষে আমি প্রতিষ্ঠানের সার্বিক সাফল্য কামনা করছি। মো: মাইন উদ্দিন,অধ্যক্ষ, ঢাকা মহিলা কলেজ
���Copyright � 2022 Design By PEOPLES SOFTECH